Supreme Court: সমাজকে ভিন্ন ধর্মে ও বর্ণে বিবাহ গ্রহণ করতে শিখতে হবে

Supreme Court Society must learn to accept intercaste, interfaith marriages
Image Source: Google

আউটলাইন বাংলা ডিজিটাল ডেস্কঃ কোনো নীতি অবলম্বন করে আর আটকানো যাবে না ভিন্ন ধর্মে ও ভিন্ন বর্ণে বিয়ে। লাভ জেহাদ (Love Jihad) ইস্যুতে এমনটাই জানালো শীর্ষ আদালত। সুপ্রিম কোর্টের (Supreme Court) জানিয়েছে, এটাই প্রকৃত সময়, সমাজকে মেনে নিতে হবে। যে কোনো পুরুষ ও মহিলার নিজস্ব অধিকার আছে নিজের সঙ্গী পছন্দ করার।

সম্প্রতি, কর্ণাটকের ভিন্ন ধর্মের এক অধ্যাপক-দম্পতি পরিবারের অমতে পালিয়ে বিয়ে করেন, কিন্তু ভিন্ন ধর্মে বিয়ে মেনে নেননি ওই তরুণীর পরিবার। এই ঘটনার পরই মেয়ের বাড়ির লোকেরা তরুণীর বিরুদ্ধে নিখোঁজের ডায়েরি করেন। এরপরই ওই দম্পতি এফআইআরের বিরুদ্ধে সুপ্রিম কোর্টের (Supreme Court) দারস্থ হন। এবং ওই মামলার শুনানিতে সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি সঞ্জয়কৃষ্ণ কৌল ও হৃষীকেশ রায়ের ডিভিশন বেঞ্চ জানিয়েছে, ভিন্ন ধর্ম ও ভিন্ন বর্ণে বিয়ে মেনে নেওয়া খুব জরুরী।

এছাড়াও জানান, অভিভাবকরা শুধুমাত্র ভিন্ন ধর্মে বিবাহের জন্য যদি নিজের সন্তানকে অবহেলিত করে অর্থাৎ দূরে ঠেলে দেন, এমন ব্যবহার কখনই আদর্শ সামাজিক রীতি হতে পারে না। সুপ্রিম কোর্টের (Supreme Court) এই মন্তব্যকে তাৎপর্যপূর্ণ বলেই মনে করছেন একাধিক সমাজতত্ত্ববিদরা।