Homeবিবিধকরোনা মোকাবিলায় ৯ দফা পরামর্শ দিয়ে কেন্দ্রকে চিঠি বিরোধী দলগুলির

করোনা মোকাবিলায় ৯ দফা পরামর্শ দিয়ে কেন্দ্রকে চিঠি বিরোধী দলগুলির

Outlinebangla Digital Desk: করোনা মোকাবিলায় যেখানে একমাত্র হাতিয়ার ভ্যাকসিন, দেশে সেই ভ্যাকসিনের অভাব পড়েছে। পর্যাপ্ত পরিমাণে ভ্যাকসিনের অভাবে বহু মানুষ তা পাচ্ছেন না। যদিও কেন্দ্রীয় সরকার তা মানতে নারাজ। ভ্যাকসিনের সাথে আকাল পড়েছে অক্সিজেনের। হাসপাতালে নেই বেড। এই পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ৯ দফা পরামর্শ দিয়ে দেশের ১২ টি বিরোধীদল চিঠি দিল। যদিও বিজেপি নেতারা সেই পরামর্শকে ‘বিরোধীদের রাজনীতি’ বলে আখ্যা দিয়েছেন।

মোদিকে পাঠানো চিঠিতে সই করেছেন কংগ্রেস সভানেত্রী সোনিয়া গান্ধী থেকে শুরু করে তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়, সর্বভারতীয় সিপিএম সম্পাদক সীতারাম ইয়েচুরি, এনসিপি প্রধান শরদ পাওয়ার, প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী দেবগৌড়া, শিবসেনা প্রধান উদ্ধব ঠাকরে, ডিএমকে প্রধান এমকে স্ট্যালিন, জেএমএম প্রধান হেমন্ত সোরেন,ফারুক আবদুল্লাহ, তেজস্বী যাদব, অখিলেশ যাদব সহ আরও অনেকে।

৯ দফায় পরামর্শ দিয়ে কেন্দ্রীয় সরকারকে চিঠি দেওয়া হয়েছে। এক নজরে দেখে নেওয়া যাক বিরোধীদের পরামর্শ গুলি কী কী।
● কেন্দ্র সরকার ভ্যাকসিন কিনে তা রাজ্য সরকারগুলিকে দেওয়া হোক।
● ভ্যাকসিনের উৎপাদন বাড়াতে হবে। তার জন্য অন্যান্য কোম্পানি গুলিকে অনুমতি দেওয়া হোক।
● গোটা দেশে বিনামূল্যে গণটিকাকরণ কর্মসূচি শুরু করতে হবে।
● ৩৫ হাজার কোটি টাকা ভ্যাকসিনের জন্য বরাদ্দ করা হোক।
● সেন্ট্রাল ভিস্তা প্রকল্প বন্ধ করে সেই টাকায় করোনার ভ্যাকসিন, অক্সিজেন, চিকিৎসা সরঞ্জাম কেনা হোক।
● পিএম কেয়ারের টাকা করোনা মোকাবিলায় খরচ করা হোক।
● মহামারীতে যারা কাজ হারিয়েছেন তাদের মাসে ৬,০০০ টাকা করে দেওয়া হোক।
● মহামারীতে অনাহারে থাকা সবার জন্য বিনামূল্যে খাদ্যশস্য বিলি করা হোক।
● কৃষি আইন বাতিল করে কৃষকদের অতিরিক্ত খাদ্য উৎপাদনে উৎসাহ দেওয়া হোক।

এর শেষে বিরোধীরা কটাক্ষ করে লিখেছেন, “যদিও চিঠির উত্তর দেওয়া আপনার সরকার বা দফতরের স্বভাবে নেই, তাও দেশ এবং জনগণের স্বার্থে যদি আমাদের পরামর্শের কোনও জবাব দেন তবে স্বাগত জানাব।”

এই মুহূর্তে