Homeস্বাস্থ্যপুষ্টি গুননিয়মিত কেন খাবেন ব্ল্যাক কফি?

নিয়মিত কেন খাবেন ব্ল্যাক কফি?

Outlinebangla Desk: ব্ল্যাক কফি স্বাদে তেতো হওয়াই অধিকাংশ মানুষই এটি পছন্দ করে না। আবার কারও কারও ধারণা ব্ল্যাক কফি স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর। তবে এটি একটি ভ্রান্ত্র ধারনা। ব্ল্যাক কফি স্বাস্থ্যের জন্য ভীষণ উপাকারী। বিশেষজ্ঞদের মতে দিনে অন্তত দু-বার কফি পান করা উচিত। সকালে ব্রেকফাস্টের পরে এবং সন্ধ্যায় এক কাপ কফি পান করলে মেজাজ বেশ ফুরফুরে থাকে। জেনে রাখা ভালো এক কাপ কফিতে থাকে ৬০ শতাংশ পুষ্টি, ২০ শতাংশ ভিটামিন এবং ১০ শতাংশ খনিজ ও ১০ শতাংশ ক্যালরি।

ব্ল্যাক কফির স্বাস্থ্যগুণঃ
১) ওজন হ্রাসঃ কম বেশি অনেককেই অফিসে বসে দীর্ঘক্ষণ কাজ করতে হয়। ঘণ্টার পর ঘণ্টা কম্পিউটারের সামনে বসে থাকতে হয়। যার ফলে ওজন বেড়ে যাওয়ার একটা প্রবল সম্ভাবনা থাকে যায়। ওজন কমানোর জন্য ব্ল্যাক কফির গুনাগুন অনবদ্য। এটি মেটাবলিজম ৫০% বাড়িয়ে দেয় এবং এর সাথে পেটে জমে থাকা চর্বি গলাতে সাহায্য করে।
২) হার্ট সুস্থ রাখেঃ চিনি ছাড়া ব্ল্যাক কফি পান করলে আমাদের হার্ট সুস্থ থাকে। এছাড়াও ব্ল্যাক কফি দেহের ইনফ্লামেশন কমিয়ে হৃদরোগ হওয়ার ঝুঁকি হ্রাস করে।
৩) স্মৃতিশক্তি বৃদ্ধিঃ ব্ল্যাক কফি মস্তিষ্ককে সচল রাখতে সাহায্য করে। নার্ভকেও সচল রাখে। যার ফলে আমাদের মনে রাখার ক্ষমতা অনেকখানি বেড়ে যায়।
৪) মন সতেজ রাখেঃ এক কাপ ব্ল্যাক কফি ক্যাফিন নার্ভ সিস্টেমকে প্রভাবিত করে, যার ফলে আপনার মন মন সতেজ হওয়ার সাথে সাথে মুড ভালো হয়ে যায়।
৫) ডায়াবেটিসের ঝুঁকি হ্রাস করেঃ ডায়াবেটিসের ঝুঁকি কমাতে ব্ল্যাক কফির জুড়ি মেলা ভার। কফির উপাদানসমূহ ব্লাড সুগার কমিয়ে দেয় সাথে সাথে মেটাবলিজম বৃদ্ধি করে। নিয়মিত কফি পানে ৭% ডায়াবেটিস হওয়ার ঝুঁকি কমে।

এছাড়াও ব্ল্যাক কফি পান করলে ক্যান্সার হওয়ার ঝুঁকি অনেকাংশে কমে যায়। এছাড়াও ব্ল্যাক কফিতে থাকা বিভিন্ন ধরনের আন্টিঅক্সিডেন্ট যা শরীর সুস্থ রাখে। এক কাপ কফিতে থাকে ভিটামিন বি২, বি৩, বি৫, ম্যাঙ্গানিজ, ম্যাগনেশিয়াম, পটাশিয়াম ইত্যাদি।

এই মুহূর্তে